নীলফামারী

সৈয়দপুরে অবস্থিত বাংলাদেশ আর্মি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি: নীলফামারীর সৈয়দপুরে অবস্থিত বাংলাদেশ আর্মি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বিএইউএসটি) অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন নিয়ে অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে গতকাল (সোমবার) বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ওই বন্ধের ঘোষণা দেন।

গতকাল বিশ্ববিদ্যালয়ের জরুরী বিশেষ সিন্ডিকেটের সিদ্ধান্তের পরিপ্রেক্ষিতে অনিবার্য কারণবশতঃ ৭ আগস্ট থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল একাডেমিক কার্যক্রম বন্ধ করে সকল শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে। এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. মো. মোয়াজ্জম হোসেন স্বাক্ষরিক নোটিশ প্রদান করা হয়। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ গতকাল সোমবার রাত ১০ টার মধ্যে শিক্ষার্থীদের হল ত্যাগের নির্দেশ দেন। এতে করে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রদের আব্বাস উদ্দিন হল ও ছাত্রীদের বীর প্রতীক তারামন বিবি হলে অবস্থানরত শিক্ষার্থীরা চরম বিপাকে পড়েন। এদিকে গত রবিবার থেকে রংপুর বিভাগের অনির্দিষ্টকালের জন্য পরিবহন ধর্মঘট চলছে। এ অবস্থায় বিশ্ববিদ্যালয়ের হল ত্যাগের পর কিভাবে নিজ নিজ বাড়িতে পৌঁছবেন তা নিয়ে চরম অনিশ্চতার মধ্যে পড়েছেন শিক্ষার্থীরা।
বিশ্ববিদ্যালয়ের বি. এস. সি ইঞ্জিনিয়ারিং ইন কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং (সিএসই) বিভাগের অধ্যরত ও আব্বাস উদ্দিন আহমেদ হলের আবাসিক এক ছাত্র নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, আমার বাবার চাকরি সূত্রে আমাদের পরিবার গাইবান্ধায় থাকেন। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ আকস্মিক আমাদের হল ত্যাগের নির্দেশ দিয়েছেন। রাত ১০ টার মধ্যে আমাদের হল ছেড়ে চলে যেতে বলা হবে। শুনেছি রংপুর বিভাগে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট শুরু হয়েছে। আমি এখন কিভাবে বাবা-মায়ের কাছে পৌঁছব সেই দুশ্চিন্তায় পড়েছি। আর সৈয়দপুরে আমার তেমন কোন নিকটাত্মীয়-স্বজনও নেই যে তাদের বাসায় গিয়ে উঠব। এ অবস্থায় আমি কি করব ভেবেচিন্তে কুল পাচ্ছিনা। ওই শিক্ষার্থীর মতো বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য শিক্ষার্থীদের অবস্থা দাঁড়িয়েছে।
প্রসঙ্গত, ৯ দফা দাবিতে সৈয়দপুরে অবস্থিত বাংলাদেশ আর্মি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা গতকাল সোমবার ও আগের দিন রবিরার ক্লাস বর্জন করেন। তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামনে সৈয়দপুর-পার্বতীপুর সড়ক অবরোধ সৃষ্টি করে সড়কে ওপর অবস্থান নেয়। ফলে ওই আঞ্চলিক মহাসড়ক দিয়ে সব রকম যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে পড়ে। এ অবস্থায় যে কোন প্রকার অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ গতকাল সোমবার থেকে বিশ্ববিদ্যালয় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধের ঘোষণা দেন।
এ নিয়ে কথা বলার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ড. মো. মোয়াজ্জম হোসেনের ০১৭৬৯-৬৭৫৫৫১ নম্বর মুঠোফোনে কল করলে তা বন্ধ থাকায় কোন বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।
বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারি রেজিস্ট্রার মো. কাজী নাজমুল হকের সঙ্গে তাঁর ০১৭৬৯-৬৭৫৫৫৪ নম্বর মুঠোফোনে কল দিলে তিনি রিসিভ করে বলে আমি এখন দুুপুরে খাবার খাচ্ছি। প্লিজ পরে কথা বলব বলে সংযোগ কেটে দেন তিনি। পরে বার বার চেষ্টা করেও তার সঙ্গে আর কথা বলা সম্ভব হয়নি।

Show More

News Desk

তিস্তা নিউজের নিউজ রুম থেকে সমস্ত বিভাগসহ বাংলাদেশের সর্বশেষ সংবাদ প্রকাশ করা হয়। আপনি যদি তিস্তানিউজ ২৪.কম এ প্রকাশের জন্য আমাদের ট্রেন্ডিং নিউজ প্রেরণ করতে চান তবে আসুন এখনই আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন। আপনার নিউজটি আমাদের নিউজ রুম থেকে নিউজ ডেস্ক হিসাবে প্রকাশিত হবে। আমাদের সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদান্তে- সম্পাদক

Related Articles

Back to top button
Close

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker